টঙ্গীতে ডাক্তারের অবহেলায় শিশুর মর্মান্তিক মৃত্যু – দৈনিক মুক্ত বাংলা
ঢাকারবিবার , ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২
  1. অপরাধ
  2. অর্থনীতি-ব্যবসা
  3. আইন ও আদালত
  4. আন্তর্জাতিক
  5. আরও
  6. ইসলাম ও ধর্ম
  7. কোভিট-১৯
  8. ক্যারিয়ার
  9. খেলা
  10. জেলার খবর
  11. তথ্যপ্রযুক্তি
  12. বিনোদন
  13. মি‌ডিয়া
  14. মু‌ক্তিযুদ্ধ
  15. যোগা‌যোগ
 
আজকের সর্বশেষ সবখবর

টঙ্গীতে ডাক্তারের অবহেলায় শিশুর মর্মান্তিক মৃত্যু

রাজন ইসলাম রাজু
সেপ্টেম্বর ২৫, ২০২২ ১১:৫০ অপরাহ্ণ
Link Copied!

ডাক্তার নামে কসাইদের বিচারের দাবী জানিয়েছে এলাকাবাসী 

গাজীপুরের টঙ্গী স্টেশন রোড মাইশা জেনারেল হাসপাতালে ডাক্তারের অবহেলার কারণে লোকনাথ নামে দের বছরের এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া যায়।২৫ সেপ্টেম্বর রবিবার দুপুরে পাগার জিনু মার্কেট ফকির মার্কেট এলাকার হারান নাথ এর দের বছরের ছেলেকে নিয়ে মাইশা জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে আসে।এসময় ইমারজেন্সি বিভাগের ডাক্তার মোঃ হাসান শিশুটিকে দেখে এজমা জনিত সমস্যা সমস্যার কথা বলে এবং তাকে নেবুলাইজার গ্যাস দিয়ে হাসপাতালের ৪ তলা ভবনের ৪০৮ নাম্বার ক্যাবিনে ভর্তি অবস্থা রাখা হয়,এবং শিশুটির পরিবারকে জানায় শিশু বিশেষজ্ঞ ডাক্তার আসছেতে, দীর্ঘ আড়াই ঘন্টা ঐ শিশুটি বেডে ভর্তি থাকার পর বিকাল ৫,৩০ মিনিটে বাচ্চাটা মারা যায়। শিশুটির মা এবং মাসীর অভিযোগ হাসপাতালের ডাক্তারের অবহেলায় ঐ শিশুটির মৃত্যু হয়েছে। তারা বলে আমরা লোকনাথ কে অন্য মেডিকেল নিয়ে যেতে চেয়েছিলাম ডাক্তার আসতে দেরি হচ্ছে বলে,কিন্তুু ডাক্তার ও হাসপাতালের আরেকজন লোক বলে সমস্যা নাই কোথাও নিতে হবে না।এখানেই চিকিৎসা হয়ে সুস্থ হয়ে যাবে। পরবর্তী বিকাল ৫,৩০ মিনিটে বলে বাচ্চার অবস্থা ভালো না তারাতাড়ি তাকে অন্য হাসপাতালে নিয়ে যান।
একজন নার্স দিয়ে আমাদের জোর করে নামিয়ে দিতে চাইলে আমরা এখানে বসে পড়ি এবং দেখি আমাদের বাচ্চা শ্বাস নেয় না,সে মারা গেছে।
তাদের ভুলের কারণেই আমাদের ছেলের মৃত্যু হয়েছে। আমরা এর বিচার চাই। এ বিষয়ে ইমারজেন্সী বিভাগের ডাক্তার মোঃ হাসান বলে বাচ্চার শ্বাস কষ্ট জনিত সমস্যা ছিলো প্রথমে তাকে নেবুলাইজার গ্যাস এবং অক্সিজেন দিয়ে বেড এ রাখা হয়।পরবর্তীতে শিশুটির অবস্থা আশংকা জনক হওয়ায়,শিশুটিকে ঢাকা শিশু হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার জন্য বলা হয়।তারা নামার সময় সিড়িতে মারা যায় বাঁচ্চাটি। সংবাদ পেয়ে টঙ্গী পূর্ব থানা পুলিশের এ এসআই মামুন ঘটনাস্থলে এসে লাশ নিয়ে থানায় যেতে বলে।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।