দ‌ক্ষিন আফ্রিকার ইতিহাস নাকি ভারতের শিরোপা পুনরুদ্ধার – দৈনিক মুক্ত বাংলা
ঢাকাশনিবার , ২৯ জুন ২০২৪
  1. অপরাধ
  2. অর্থনীতি-ব্যবসা
  3. আইন ও আদালত
  4. আন্তর্জাতিক
  5. আরও
  6. ইসলাম ও ধর্ম
  7. কোভিট-১৯
  8. ক্যারিয়ার
  9. খেলা
  10. জেলার খবর
  11. তথ্যপ্রযুক্তি
  12. বিনোদন
  13. মি‌ডিয়া
  14. মু‌ক্তিযুদ্ধ
  15. যোগা‌যোগ

দ‌ক্ষিন আফ্রিকার ইতিহাস নাকি ভারতের শিরোপা পুনরুদ্ধার

বার্তা কক্ষ
জুন ২৯, ২০২৪ ৮:৫১ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

অ‌মিতাভ কাঞ্চন ::

দেখতে দেখতে কেটে গেল ২৯ দিন, চলমান টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ শেষ হতে বাকি এক ম্যাচ। আজ ভারত-দক্ষিণ আফ্রিকার ফাইনাল ম্যাচ দিয়েই পর্দা নামবে টুর্নামেন্টের নবম আসরের। বাংলাদেশ সময় রাত সাড়ে ৮ টায় ওয়েস্ট ইন্ডিজের বার্বাডোজের কেনসিংটন ওভাল স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হবে এই ম্যাচটি। ইতিমধ্যে এই ম্যাচটি নিয়ে চলছে জল্পনাকল্পনা। সবাই অপেক্ষা করছে জমজমাট লড়াই দেখতে। কেননা দুই দলই এবারের আসরে এখন পর্যন্ত অপরাজিত। কেউ এখনও হারেনি একটি ম্যাচও। দক্ষিণ আফ্রিকা বাংলাদেশের বিপক্ষে হারের কাছাকাছি গেলেও ভারত সব দলের বিপক্ষে দাপটের সঙ্গেই লড়াই করে এসেছে। তাই বলা যায় শিরোপানির্ধারণীর ম্যাচে আসরের দুটি সেরা দলই খেলবে আর তাদের লড়াই দেখতে মুখিয়ে আছে গোটা বিশ্বের ক্রিকেটপ্রেমীরা। তবে এই ফাইনালে রয়েছে বৃষ্টির চোখ রাঙানি যদিও রয়েছে রিজার্ভ ডে।

ক্রিকেটে চোকার্স নামে ডাকা হয় দক্ষিণ আফ্রিকাকে। কেননা আইসিসির বৈশ্বিক টুর্নামেন্টে তারা ভালো শুরু পেলেও কোনো বারই সেমিফাইনালের বেশি যেতে পারে না। হোক সেটা টি-টোয়েন্টি ফরম্যাট কিংবা ওয়ানডে ফরম্যাটে। এ ঘটনা একবার দুবার নয় এমন ঘটনা ঘটেছে বহুবার। একেবারে ফাইনালের দোরগোড়ায় পৌঁছে গিয়েও সেই ম্যাচ হেরে যেতে হয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা দলকে। ১৭ বারের চেষ্টাতে কোনো আইসিসি ট্রফির ফাইনালে খেলতে পারেনি তারা। এর মধ্যে সাত বার সেমিফাইনালও খেলেছে। অবশেষে ১৮তম চেষ্টায় পেয়েছে সফলতার দেখা। উড়ন্ত আফগানিস্তানকে মাটিতে নামিয়ে অপরাজিত দল হিসেবে প্রথম ফাইনালে খেলার যোগ্যতা অর্জন করে চোকার্সরা। নজর শিরোপাতেই।

অন্যদিকে প্রথম আসরের শিরোপা জয়ী ভারত চলমান টুর্নামেন্টের শুরু থেকেই উড়ছে। রয়েছে জয়ের মধ্যেই যদিও গ্রুপ পর্বে কানাডার বিপক্ষের ম্যাচটি বৃষ্টিতে ভেস্তে যায় তবে বাকি ম্যাচগুলোতেই কোনো প্রতিপক্ষই তাদের মনে ভয় ধরাতে পারেনি। শক্তিশালী অস্ট্রেলিয়া, ইংল্যান্ড, পাকিস্তান কিংবা উড়ন্ত আফগানিস্তান, যুক্তরাষ্ট্র কেউই দাঁড়াতে পারেনি রোহিত-বিরাটদের সামনে। এবার পালা শিরোপা পুনরুদ্ধারের, পাশাপাশি বৈশ্বিক আসরে শিরোপা খড়া কাটানোরও। ২০১১ সালে ওয়ানডে শিরোপা জয়ের পর থেকে এখন পর্যন্ত তাদের প্রাপ্তি শূন্য। ২০১৪ সালে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনাল ও ২০১৬-২০২২ আসরে সেমিফাইনালের খেললেও শিরোপার দেখা পায়নি। এছাড়া ওয়ানডে ফরম্যাটেও গত বছর ঘরের মাঠে শিরোপার খুব কাছে গেলেও অস্ট্রেলিয়ার কাছে ফাইনালে হেরেছে ভারত। তাই এবার সেই ক্ষত কাটানোর সুযোগ।

এদিকে এবার টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের দুই ফাইনালিস্টই টুর্নামেন্টের শুরু থেকে এখনও পর্যন্ত অপরাজিত। এমনটা এর আগে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের কোনো আসরেই দেখা যায়নি। তাই বলা যায় এ ঘটনা এবারই প্রথম। সে কারণেই বিশ্বকাপ ফাইনালের লড়াইটা এবার যে শেয়ানে শেয়ানে হবে, তা বলার অপেক্ষা রাখে না। এই ম্যাচ ঘিরে উন্মাদনার পারদ এখন তুঙ্গে। তবে ভারতের এ নিয়ে খানিকটা ভয় থাকতে পারে। কেননা ২০২৩ ওয়ানডে বিশ্বকাপের ফাইনালেও তারা উঠেছিলো অপরাজিত হয়েই শেষ অবদি হারিয়েছিলো শিরোপা। তবে মুখোমুখি পরিসংখ্যান হিসেবে এগিয়ে রয়েছে রোহিতরা। এখন পর্যন্ত টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ভারত-দক্ষিণ আফ্রিকা মুখোমুখি হয়েছে ৬ বার। তার মধ্যে ৪ জয় ভারতের আর ২ জয় প্রোটিয়াদের। যদিও সবশেষ (২০২২) কুড়ি ওভারের বিশ্বকাপে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে পাঁচ উইকেটে ব্যবধানে হেরেছিল ভারত।

তবে শিরোপা নির্ধারণীর এই ম্যাচেও রয়েছে বৃষ্টির শঙ্কা। ক্রিকেট ভিত্তিক গণমাধ্যম ইয়েসপিএনক্রিকইনফোর প্রতিবেদন অনুসারে ফাইনাল ম্যাচে বৃষ্টি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। তবে আজ খেলা শেষ করার জন্য ১৯০ মিনিট অতিরিক্ত সময় বরাদ্দ করা রয়েছে। বিজয়ী ঘোষণার জন্য উভয় দলকে কমপক্ষে ১০ ওভার ব্যাট করতে হবে। তবে যদি খেলা মাঠে না গড়ায় তাহলে এই খেলাটি গড়াবে রবিবার। ম্যাচের দিনের মতো রিজার্ভ ডেতেও খেলা শুরু হবে বাংলাদেশ সময় সাড়ে ৮টায়।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।