ছয় মাসে আন্তর্জাতিক বাজারে তে‌লের দাম কমেছে ২৯% দেশে বেড়েছে ৯ শতাংশ – দৈনিক মুক্ত বাংলা
ঢাকাশুক্রবার , ৫ মে ২০২৩
  1. অপরাধ
  2. অর্থনীতি-ব্যবসা
  3. আইন ও আদালত
  4. আন্তর্জাতিক
  5. আরও
  6. ইসলাম ও ধর্ম
  7. কোভিট-১৯
  8. ক্যারিয়ার
  9. খেলা
  10. জেলার খবর
  11. তথ্যপ্রযুক্তি
  12. বিনোদন
  13. মি‌ডিয়া
  14. মু‌ক্তিযুদ্ধ
  15. যোগা‌যোগ

ছয় মাসে আন্তর্জাতিক বাজারে তে‌লের দাম কমেছে ২৯% দেশে বেড়েছে ৯ শতাংশ

সম্পাদক
মে ৫, ২০২৩ ১১:৫৫ অপরাহ্ণ
Link Copied!

নিজস্ব প্রতিবেদক ::

আন্তর্জাতিক বাজারে ২০২২ সালের অক্টোবরে প্রতি টন সয়াবিন তেলের দাম ছিল ১ হাজার ৫৭৫ ডলার ৯০ সেন্ট। বর্তমানে তা নেমে এসেছে ১ হাজার  ১১৩ ডলার ১৯ সেন্টে। ইনডেক্স মুন্ডির এ হিসাব অনুযায়ী, গত ছয় মাসে আন্তর্জাতিক বাজারে সয়াবিন তেলের দাম কমেছে ২৯ দশমিক ৩৬ শতাংশ।

যদিও এ সময় দেশের বাজারে ভোজ্যতেলের দাম বেড়েছে। গতকালই প্রতি লিটার বোতলজাত সয়াবিন তেলের দাম ১৯৯ টাকা ও খোলা সয়াবিনের দাম ১৭৬ টাকা নির্ধারণের ঘোষণা দিয়েছে ভোজ্যতেল উৎপাদনকারীদের সংগঠন বাংলাদেশ ভেজিটেবল অয়েল রিফাইনার্স অ্যান্ড বনস্পতি ম্যানুফ্যাকচারার্স অ্যাসোসিয়েশন।

সংগঠনটির এ-সংক্রান্ত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে ৫ লিটারের সয়াবিন তেলের দাম ৯৬০ টাকা নির্ধারণের কথাও জানানো হয়। ছয় মাস আগেও দেশে সয়াবিন তেলের পাঁচ লিটারের বোতলের ব্যবসায়ী ঘোষিত দাম ছিল ৮৮০ টাকা। সে হিসেবে ছয় মাসের ব্যবধানে দেশের বাজারে সয়াবিন তেলের দাম বেড়েছে ৯ শতাংশের বেশি।

এর আগে সর্বশেষ গত বছরের ১৭ নভেম্বর দেশের বাজারে সয়াবিন তেলের দাম বাড়ানো হয়েছিল। নতুন নির্ধারিত দাম অনুযায়ী, এখন থেকে ১ লিটারের বোতলজাত সয়াবিন তেলের দাম ১২ টাকা বেড়ে ১৯৯ টাকায় বিক্রি হবে। এত দিন এ দাম ছিল ১৮৭ টাকা। এছাড়া ৫ লিটারের বোতলজাত সয়াবিন তেলের দাম ৫৪ টাকা বেড়ে হয়েছে ৯৬০ টাকা। এত দিন দাম ছিল ৯০৬ টাকা। অন্যদিকে খোলা সয়াবিনের দাম লিটারে ৯ টাকা বেড়ে ১৭৬ টাকা হয়েছে। এত দিন প্রতি লিটার বিক্রি হয়েছে ১৬৭ টাকায়। আর প্রতি লিটার খোলা পাম তেল বিক্রি হবে ১৩৫ টাকা করে।

দাম বৃদ্ধির কারণ প্রসঙ্গে বাংলাদেশ ভেজিটেবল অয়েল রিফাইনার্স অ্যান্ড বনস্পতি ম্যানুফ্যাকচারার্স অ্যাসোসিয়েশন বলছে, ভোজ্যতেল আমদানিতে সরকারপ্রদত্ত ভ্যাট অব্যাহতির মেয়াদ গত ৩০ এপ্রিল শেষ হওয়ায় সংগঠনটি বাণিজ্য মন্ত্রণালয় ও বাংলাদেশ ট্যারিফ কমিশনের সঙ্গে আলোচনা করে ভোজ্যতেলের দাম বাড়ানোর এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

ভোজ্যতেল আমদানির ক্ষেত্রে ১৫ শতাংশ হারে ভ্যাট দেয়ার নিয়ম রয়েছে। রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের প্রেক্ষাপটে বিশ্ববাজারে ভোজ্যতেলের দাম বেড়ে যায়। তাই দেশের বাজারে ভোজ্যতেলের দাম সহনীয় রাখতে গত বছরের মার্চে ভ্যাটের পরিমাণ ৫ শতাংশে নামিয়ে আনা হয়। প্রথমবার তিন মাসের জন্য এ সুবিধা দেয়া হলেও পরে তা একাধিকবার বাড়ানো হয়। সর্বশেষ রমজান মাসে ভোজ্যতেলের দাম সহনীয় পর্যায়ে রাখতে এ সুবিধার মেয়াদ গত ৩০ এপ্রিল পর্যন্ত রাখা হয়।

মেয়াদ শেষ হওয়ায় ওই দিনই বাণিজ্য সচিব তপন কান্তি ঘোষের কাছে সয়াবিন তেল ও পাম তেলের দাম সমন্বয় তথা বৃদ্ধির আবেদন করে বাংলাদেশ ভেজিটেবল অয়েল রিফাইনার্স অ্যান্ড বনস্পতি ম্যানুফ্যাকচারার্স অ্যাসোসিয়েশন। এর চারদিনের মাথায় সয়াবিন ও পাম তেলের দাম বৃদ্ধির ঘোষণা দিল সংগঠনটি।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।